মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

এক নজরে

দিনাজপুর জেলায় সরকারী পর্য্যায়ে কৃষি স¤প্রসারণ অধিদপ্তররের আওতায় হর্টিকালচার সেন্টার দিনাজপুর ১৯৭৮ সালে বর্তমানে হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বাঁশেরহাট, দিনাজপুর চত্ত¡রে ৪.০ হেক্টর জমিতে প্রতিষ্ঠিত হয় । ১৯৮৮ সালে হাজী মোহাম্মদ দানেশ কৃষি কলেজ (বর্তমানে হাবিপ্রবি) প্রতিষ্ঠার সময় সেন্টারের সম্পূর্ণ জমি অধিগ্রহন হওয়ায় সেন্টারটি স্থানান্তর করে প্রথমে বালুবাড়ীস্থ খামারবাড়ী চত্ত¡রে এবং পরে ১৯৯২-৯৩ সালে সদর উপজেলা পরিষদ সংলগ্ন তৎকালীন উদ্ভিদ সংরক্ষন (পি.পি.) গোডাউন এর ১.৩০ একর জমিতে স্থানান্তরিত হয় এবং অদ্যাবধি উক্ত স্থানে সেন্টারের মূল কার্যক্রম চলছে। বর্তমানে জমিটির মালিকানা সদর উপজেলা পরিষদ এর এবং দখল সূত্রে মালিক হর্টিকালচার সেন্টার। এখানে পুরাতন পি.পি. গোডাউনের ৪/৫ টি কক্ষে অফিস, ট্রেনিং  রুম এবং মাত্র ০.৫০ শতক জমিতে চারা/কলম উৎপাদন ও বিতরন চলছে। এছাড়াও সদর উপজেলার গোবিন্দপুরে ০.৫০ একর জমিতে একটি মাতৃবাগান স্থাপন করা হয়েছে। বর্তমানে সেন্টারটিতে দেশী-বিদেশী বিভিন্ন জাতের ফল-ফুলের জার্মপ¬াজম সংরক্ষিত আছে। হর্টিকালচার সেন্টার দিনাজপুর কর্তৃক ১৯৭৮ সালে থেকে বৃহত্তর দিনাজপুর জেলায় কৃষিজীবিদের উদ্যানতাত্তিক, মাশরুম চাষ এবং নার্সারী স্থাপনের বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। যার প্রেক্ষিতে জেলায় পূর্বের তুলনায় চারা/ কলম/ বীজের চাহিদা, ফলবাগান স্থাপন ও উৎপাদন বহু গুনে বৃদ্ধি পেয়েছে। তাছাড়া উৎপাদিত মানসম্পন্ন চারা/কলম বৃহত্তর দিনাজপুরের ৩টি জেলায় সরবরাহ করা হচ্ছে। এরই প্রেক্ষিতে দিনাজপুর সদর উপজেলার সদরপুরে তুলা বীজ বর্র্ধন ও প্রশিক্ষণ খামার হতে প্রাপ্ত ৫.০০ হেঃ জমিতে সেন্টারের উন্নয়নমূলক কার্যক্রম দক্ষতার সাথে পরিচালিত হচ্ছে।

ছবি


সংযুক্তি


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter